কুয়েত থেকে প্রায় ৩০০ প্রবাসী দেশে ফি’রছে

দেশের অর্থনীতির চাকা সচ’ল রা’খতে প্রবাসীদের পাঠানো রেমিটেন্স অগ্রণী ভূমি’কা পা’লন করে। এই রেমিটেন্স প্রে’রণের অন্যতম তালিকায় আছে কুয়েত। দেশটিতে প্রায় সাড়ে তিন লাখ প্রবাসী বাংলাদেশি আছেন।গত এপ্রিল মাসে দেশটিতে থাকা অবৈ’ধ অভিবা’সীদের জন্য সাধারণ ক্ষ’মার ঘো’ষণা করে দেশটির সরকার। ওই সাধারণ ক্ষ’মায় সাড়ে ৪ হাজারের বেশি অ’বৈধ প্রবাসী বাংলাদেশি নিব’ন্ধন করেছে।

১২ ও ১৩ মে প্রায় ৬০০ জন প্রবাসী দেশে ফি’রবেন বলে জানা গেছে। এরপর ১৬, ১৭, ২১ ও ২২ মে কুয়েত এয়ারওয়েজ ও আল জাজিরার দুইটি ফ্লাইটে সর্বমোট ১ হাজার ৮০০ প্রবাসী দেশে ফে’রার কথা রয়েছে। সাধারণ ক্ষ’মায় নিব’ন্ধ’নকৃত প্রবাসীদের বিমান টিকেট ও থাকা খাওয়া কুয়েত সরকার বহ’ন করছে। এই সব প্রবাসী পুনরায় নতুন ভিসায় কুয়েতে যেতে পারবে।

কুয়েতে নি’যুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এসএম আবুল কালাম বলেন, সাধারণ ক্ষ’মার আও’য়তায় নিব’ন্ধনকৃত প্রবাসীদের আমরা যতো দ্রুত সম্ভব দেশে পা’ঠাতে চাই। আমাদের কাছে কয়েকজন প্রবাসী তাদের থাকা খাওয়ার সমস্যা নিয়ে অ’ভিযোগ করেছেন-আমরা সেটা কুয়েত সরকারের সংশ্লি’ষ্ট মন্ত্রণালয়কে চিঠির মাধ্যমে জানিয়েছি।

ফ্লাইটগুলোতে বয়স্ক, নারী ও শিশুদের আগে সিরিয়াল দিতে অনুরো’ধ জানিয়েছি। দেশে যাওয়ার সময় বাংলাদেশ সরকারের শ’র্ত মো’তা’বেক তাদেরকে কুয়েত সরকার কো’ভিট-১৯ সন’দ প্র’দান করবে। যাদের কাছে এই স’নদ থাকবে না, দেশে পৌঁছানোর পর তাদেরকে বাংলাদেশ সরকারের নির্ধা’রিত কোয়া’রেন্টাইনে থাকতে হবে। প্রতি সপ্তাহে ধা’পে ধা’পে সবাইকে নিয়ে যাওয়া হবে।

মঙ্গলবার কুয়েত এয়ারওয়েজ ও আল জাজিরা এয়ারলাইন্সে করে প্রায় ৩০০ প্রবাসী দেশে পৌঁছা’নোর নি’শ্চিত খবর পাওয়া গেছে।